বাচ্চাকে রাখুন সুরক্ষিত ও রোগমুক্ত

    স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের মতে, একটি বাচ্চা তার প্রথম বয়সকাল থেকে খেলাধুলা এবং ব্যায়fম সাথে যুক্ত থাকলে তার শারীরিক অনেক ঝুঁকিই কমে যায়।

    মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ হেল্‌থ (এনআইএইচ) এর মতে, নতুনদের জন্য খেয়াল রাখতে হবে, যে খেলা বা ব্যায়ামের প্রোগ্রামে আপনার শিশুকে যুক্ত করছেন তা শিশুর ক্ষমতা এবং আগ্রহের পক্ষে কিনা। যদি তা পক্ষে না থাকে তবে আপনার শিশুটির জন্য সঠিক কাজ হবে না।

    যথাযথভাবে রক্ষণাবেক্ষণ সুবিধার সঙ্গে সংগঠিত ক্রীড়াঙ্গনে শিশুকে ভর্তি করার সিদ্ধান্ত নিন। এছাড়া লক্ষণ রাখুন যেখানে শিশুকে খেলাধুলা বা ব্যায়মের জন্য পাঠাচ্ছেন সেখানে কোচের প্রাথমিক চিকিৎসা সেবা এবং সি আর পি প্রশিক্ষণ আছে কিনা।

    একটি শিশুকে যেকোনো আঘাত থেকে বাঁচতে যথাযথ নিরাপত্তা বজায় রেখে খেলাধুলা এবং ব্যায়ম করা উচিত এবং এই নিরাপত্তা অনুসরণ করতে হবে শিশু ও পিতামাতাকে। বাবা মা কে খেয়াল রাখতে হবে তার শিশুটি কি স্বেচ্ছায় আগ্রহ নিয়ে কাজটি করছে কিনা।

    জাতীয় স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা মনে করেন, ব্যায়াম এবং খেলাধুলা উভয়ই একটি শিশুর শারীরিক ও মানসিক বিকাশে অত্যন্ত জরুরী। শারীরিক কার্যকলাপ শরীরের স্থূলতা কমায়, ডায়বেটিসে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি কমায়। এছাড়া এর কারণে শিশুর সামাজিক দক্ষতা বৃদ্ধি পায়।